Category: তন্ত্র-স্তম্ভন

নিদ্রা স্তম্ভন মন্ত্র

নিদ্রা স্তম্ভন মন্ত্রঃ মূলং বৃহত্যাঃ মধুকং পিষ্ট্বা নস্যং সমাচরেৎ। নিদ্রাস্তম্ভমেতদ্ধি শঙ্করেন চ ভাষিতম্।। বৃহতীর মূল ও যষ্টিমধু একত্রে পেষণ করে যে নস্য গ্রহণ করে, তার নিদ্রা স্তম্ভন হয়, ইহা শিববাক্য মিথ্যা হবার নয়।

চোর স্তম্ভন মন্ত্র

চোর স্তম্ভন মন্ত্রঃ মন্ত্র-ওঁ ব্রক্ষবেশিনী শিবে রক্ষ রক্ষ স্বাহা। উপরোক্ত মন্ত্রটি হাজার আটবার জপ করে সিদ্ধিলাভ করে নিতে হবে। পরে সাতটি পাশা হাতে নিয়ে উক্ত মন্ত্রে সাতবার অভিমন্ত্রিত করে তিনটি নিজের কোমরে বেঁধে, চারখানি হাতের মুঠোর রেখে দিলে চোরের গতিশক্তি স্তম্ভন হয়।।

মেঘ স্তম্ভন মন্ত্র

মেঘ স্তম্ভন মন্ত্রঃ ইষ্টদ্বর সংপুটমধ্যে মেঘ সংখ্যক চতুরস্রং। বিলিখ্য উদ্যানে স্থাপয়েৎ তদা মেঘান্ স্তম্ভয়তি।। মন্ত্র- ওঁ মেঘান্ স্তম্ভয় স্বাহা। প্রথমে মন্ত্রটি একহাজার আট বার জপ করে সিদ্ধ হবে। তারপর একটি ইঁটের উপর চারকোণা ঘর করে, তার উপর আর ইঁট দ্বারা আচ্ছাদন করে উক্ত মন্ত্রে সাতবার অভিমন্ত্রিত করে কোন উদ্যানে পুতে...

নৌকা স্তম্ভন মন্ত্র

নৌকা স্তম্ভন মন্ত্রঃ ভরণ্যাং ক্ষীরিকাকাষ্ঠং কীলং পঞ্চাঙ্গুলং ক্ষিপেৎ। নৌকামধ্যে তদা নৌকাস্তম্ভনং জায়তে ধ্রুবম্।। ভরণী নক্ষত্রে পাঁচ আঙ্গুল মাপের ক্ষীরিকা কাঠের কীলক তৈরী করে নৌকার ভিতর রাখলে নৌকা স্তম্ভন হয়।

বুদ্ধি স্তম্ভন মন্ত্র

বুদ্ধি স্তম্ভন মন্ত্রঃ ভূঙ্গরাজমপামার্গং সিদ্ধার্থং সহমাহরেৎ।। ওলং বচঞ্চশ্বেতার্কং ধ্রুবমেষাং মহাহরেৎ।। লৌহপাত্রে বিনিক্ষিপ্য দিনান্তে তৎ সমুদ্ধরেৎ। তিলকৈঃ সর্বভুতানাং বুদ্ধিস্তম্ভন কৃং পরম্। ওঁ নমো ভগবতে বিশ্বামিত্রায় নমো নমঃ সর্বমুখীভ্যাং বিশ্বামিত্র আগচ্ছ আগচ্ছ স্বাহা। প্রথমে মন্ত্রটি হাজার আটবার জপ করে সিদ্ধ হবে। পরে ভূঙ্গরাজ, অপামার্গ, শ্বেতসরিষা, দন্ডোৎপল, বচ ও শ্বেত আকন্দের মূল, এই...

শত্রু মুখো স্তম্ভন মন্ত্র

শত্রু মুখো স্তম্ভন মন্ত্রঃ মন্ত্র-ওঁ হ্রীং রক্ষ চামুন্ডে তুরু তুরু অমুকং যে বশমানয় স্বাহা। মেঘনাদস্য মূলস্ত মুখস্থং তারবেষ্টিতম্‌। পরবাদী ভবেম্মুখোহথবা যাতিদিগন্তরম্ভ শ্বেতগুঞ্জোন্থিতং মূলং মুখস্থং পরতুণ্ডজিৎ।। প্রথমে উল্লিখিত মন্ত্র হাজার বার জপ করে সিদ্ধ হতে হবে, তারপর পলাশ বৃক্ষের মূল ত্রিলৌহ বা তার দ্বারা জড়িয়ে ধারণ করলে শত্রুমুখ স্তম্ভন হয়, অথবা-শ্বেতগুঞ্জার...

শস্ত্র স্তম্ভন মন্ত্র

শস্ত্র স্তম্ভন মন্ত্রঃ মন্ত্র-ওঁ অহো কুম্ভকর্ণ মহারাক্ষস নিকষাগর্ভসম্ভুত পরসৈন্য স্তম্ভন মাহভয় রণরুদ্র আজ্ঞাপয় স্বাহা। গৃহীত্বা শুভ নক্ষত্রে অপামার্গস্য মূল কং। লেপমাত্রে শরীরাণাং সর্বশাস্ত্র নিবারণম্।। প্রথমে উপরোক্ত মন্ত্র হাজার আটবার নির্জনে বসে জপ করে সিদ্ধ হতে হবে। তারপর যে কোন শুভবার, শুভতিথি ও শুভনক্ষত্রে অপামার্গের (আপাং) মূল তুলে পেষণ করে গাত্রে...

শত্রুর মুখ স্তম্ভন

শত্রুর মুখ স্তম্ভনঃ “ওঁ হ্রীং রক্ষ রক্ষ চামুন্ডে কুরু কুরু অমুকং মে বেশমানয় স্বাহা।” উপরের লিখিত মন্ত্র একশত আটবার জপ দ্বারা সিদ্ধ হইয়া তৎপরে মুখ স্তম্ভন কার্যের অনুষ্ঠান করিতে হয়। ১. পলাশ গাছের মূল তার বেষ্টিত করিয়া নিজের মুখে ধারণ করিলে শত্রু মুখ স্তম্ভন হয় কিম্বা শত্রু স্থানান্তরে চলিয়া যায়।...

জল স্তম্ভন

জল স্তম্ভনঃ “ওঁ নমো ভগবনে রুদ্রায় জলঃ স্তম্ভয় ঠঃ ঠঃ ঠঃ।” উপরোক্ত মন্ত্র একশত আট বার জপ করিয়া সিদ্ধ হইলে পর জলস্তম্ভন কার্যে অগ্রসর হইবে, নতুবা কোন সুফল ফলিবে না। ১. পদ্মকাষ্ঠ ‍উত্তমরুপে চূর্ণ করিয়া সেই চূর্ণ যে কোন জলাশয়ে নিক্ষেপ করিলে জল স্তম্ভিত হইয়া থাকে। ২. পুষ্যানক্ষত্রে শ্বেত কুচের...

বুদ্ধি স্তম্ভন

বুদ্ধি স্তম্ভনঃ “ওঁ নমো ভগবতে শত্রু নাং বুদ্ধি স্তম্ভয় স্বাহা।” উপরোক্ত মন্ত্র একশত আটবার জপ করিয়া সিদ্ধ হইলে তবে বুদ্ধি স্তম্ভন কার্যে প্রবৃত্ত হইবে নতুবা কার্য সফল হইবে না। ১.পেচকের বিষ্ঠা লইয়া ছায়াতে শুল্ক করে তামবুলের সহিত যে ব্যক্তিকে ভক্ষণ করাইবে তাহার বুদ্ধি স্তম্ভিত হইবে। ২. ভৃঙরাজের রসে শ্বেত শর্ষপকে...

error: Content is protected !!